কলাপাড়ায় অবৈধভাবে নদী তীর কেটে মাটি বিক্রি ॥ উৎকন্ঠায় জেলেরা ॥

dailybarta71dailybarta71
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  01:40 PM, 02 December 2019

মিলন সরকার , কলাপাড়া প্রতিনিধি

কলাপাড়ায় দূর্যোগকালীন জেলেদের পোতাশ্রয়খ্যাত খাপড়াভাঙ্গা দোন নদীর পাড় কেটে দেদার মাটি বিক্রি করছে একটি প্রভাবশালীমহল। মাসাধিককাল বিরতিহীন নদীপাড় কেটে লন্ডভন্ড করে দেয়া হয়েছে। সরকারি খাস জমির এ মাটি কেটে বিক্রি করা হলেও মহিপুর ভূমি অফিসের তহশিলদার রয়েছে নির্বিকার।

স্থানীয়দের অভিযোগ রয়েছে, ওনারা ম্যানেজ হয়ে গেছে। এ মাটি কেটে বিক্রি করছে সেখানকার প্রভাবশালী মোশাররফ মোল্লা। বিনা টাকায় সরকারি খাস জায়গা নদীপাড়ের মাটি কেটে সরবরাহ করে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে এ চক্র। স্থানীয়দের আরো বলেন, কম করে হলেও ইতোমধ্যে অন্তত তিন/চার লাখ ঘনফুট মাটি কেটে নেয়া হয়েছে বলে স্থানীয়রা জানিয়েছেন। লতাচাপলী ইউনিয়নের আলীপুর বাজারের পশ্চিম দিকের স্পটে এভাবে রাতদিন সমানে স্কেভেটর (ভেক্যু মেশিনে) দিয়ে মাটি কেটে নদীপাড়ের সর্বনাশ করা হচ্ছে। জেলেরা জানায় দূর্যোগকালীন গভীর সাগরবক্ষ থেকে হাজারো ফিশিংবোট এই নদীতে আশ্রয় নেয়। ওই নদীটির পাড় থেকে যেভাবে ফ্রি-স্টাইলে মাটি কাটা হচ্ছে তাতে আগামি মৌসুমে ভাঙ্গনের শঙ্কা রয়েছে।

অভিযুক্ত মোশাররফ মোল্লা জানান, তিনি নদী পাড়ের জমির মালিকদের কাছ থেকে মাটি কিনে নিচ্ছেন।

স্থানীয় ভূমি প্রশাসন কোন পদক্ষেপ না নেয়ার কারণে প্রভাবশালী ওই চক্রের মাটি কাটা বন্ধ হচ্ছে না। প্রায় দুই একর জায়গা জুড়ে মাটি কেটে নষ্ট করা হয়েছে। গভীর খাদের সৃষ্টি হয়েছে। বর্তমানে মাটি কাটা অব্যাহত রয়েছে।

সহকারী কমিশনার (ভূমি) অনুপ দাশ জানান, এ বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে।

আপনার মতামত লিখুন :